কনের প্রস্তুতি

বিয়ের উৎসব মানে সবারই আনন্দ। আর যে দুজন এ উৎসবের কেন্দ্রে, সেই বর-কনের সাজ নজর কাড়ে। জীবনের বিশেষ এই দিনে সবাই নিজেকে সুন্দর করে উপস্থাপন করতে চান। কেউ আবার এ নিয়ে খানিকটা দুশ্চিন্তায় পড়েন বৈকি। বিশেষজ্ঞরা জানালেন, একটু সময় নিয়ে প্রস্তুতি শুরু করলে অনুষ্ঠানের জন্য অনায়াসেই তৈরি হতে পারবেন।
হারমনি স্পা-র আয়ুর্বেদিক রূপবিশেষজ্ঞ রাহিমা সুলতানা বলেন, ‘প্রত্যেক মানুষের ত্বকেই কিছু না কিছু সমস্যা থাকে। ব্রণ, রোদে পোড়া ভাব, ত্বকের বিভিন্ন অংশে রঙের অসামঞ্জস্য থাকতেই পারে। তাই অন্তত ২-৩ মাস সময় পাওয়া গেলে কনে পুরোপুরিভাবে প্রস্তুতি
নিতে পারেন।’

পরিচ্ছন্ন উজ্জ্বল ত্বকে
ভাতের মাড়, টমেটোর রস ও সামান্য কাঁচা হলুদ বাটা মিশিয়ে বাড়িতেই তৈরি করে নিন প্যাক। এটি ত্বক পরিষ্কার রাখতে বেশ উপকারী। হলুদের ব্যবহারে ত্বকে আসবে সোনালি আভা, ত্বকের নানান সমস্যা থেকেও মিলবে মুক্তি। ত্বকে পোড়া ভাব থাকলে টক দই কাজে লাগান। ত্বক তৈলাক্ত হলে টক দইয়ের সঙ্গে ১-২ ফোঁটা লেবুর রস মিশিয়ে ত্বকে লাগাতে পারেন। শুষ্ক ত্বকের জন্য টক দইয়ের সঙ্গে মেশান জলপাই তেল। টক দইয়ের প্যাক তৈরি করে কাচের বয়ামে করে ফ্রিজে রেখে দিতে পারেন। প্রতিদিন এই প্যাক ব্যবহার করা যায়।

ব্রণ, দাগ?
ত্বকে ব্রণ থাকলে ব্রণের জায়গাগুলোতে প্রতিদিন লবঙ্গগুঁড়া লাগিয়ে রাখুন মিনিট বিশেক। চাইলে এর সঙ্গে মেথিগুঁড়া মিশিয়ে নিতে পারেন। এ ছাড়া পুদিনা পাতা বাটার সঙ্গে ১-২ ফোঁটা লেবুর রস মিশিয়ে শুধু ব্রণের স্থানগুলোতে লাগিয়ে রাখুন। শুকিয়ে যাওয়ার পর ভালোভাবে ত্বক পরিষ্কার করে নিন।

হাত ও পায়ের যত্নে
সমপরিমাণ গ্লিসারিন, গোলাপজল, জলপাই তেল একসঙ্গে মিশিয়ে একটি কাচের বয়ামে রেখে দিন। গোড়ালিতে লাগানোর আগে বয়ামটি ঝাঁকিয়ে নিন। গোড়ালি অতিরিক্ত ফেটে গেলে ঝামা ব্যবহার করতে পারেন। হাত ও পা ফেটে যাওয়ার সমস্যায় পেট্রোলিয়াম জেলি উপকারী।

ঝলমলে চুল
আমলকী, টক দই, ডিম, মেথি, পাকা কলা ও মধু একসঙ্গে মিশিয়ে চুলে লাগিয়ে রাখুন ৩০ মিনিট। এরপর চুল ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে ১-২ দিন এ প্যাক লাগাতে পারেন।

সৌন্দর্য সেবাকেন্দ্রে সেবা নিতে
এই সময়টাতে সৌন্দর্য সেবাকেন্দ্রেও সেবা নেওয়া যেতে পারে বলে জানালেন রাহিমা সুলতানা। ত্বকের ধরন ভেদে ফেসিয়াল ও বডি স্ক্রাবের ধরন বেছে নিন। হারবাল উপাদানসমৃদ্ধ বিভিন্ন উপকরণ বেছে নিতে পারেন।

যত্ন নিন পুরো শরীরের
শসা বাটা, গাজর বাটা, কাঁচা হলুদ, লাল আটা, দুধ, জলপাই তেল মিশিয়ে প্যাক তৈরি করে এক দিন পরপর ব্যবহার করুন। ২০ মিনিট পর তেল দিয়ে মিশ্রণটি উঠিয়ে ত্বক পরিষ্কার করে ফেলুন। গোসলের পানিতে অ্যারোমা (চন্দন, জেসমিন বা অন্য কিছু) মিশিয়ে নিতে পারেন। এটি সরাসরি ত্বকের সৌন্দর্য বাড়ায় না, তবে এ উপকরণের সুগন্ধে আপনি সতেজ অনুভব করবেন।

লেখা: প্রথম আলো

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

AllEscort